আমিরের কাছে বাজি হারতে চাননি ক্যাট

Avatar
মেসবা-উর রহমান, নিজস্ব প্রতিবেদক
৭:২৭ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ৩০, ২০১৯

বাজি ধরেছিলেন ক্যাটরিনা কাইফ ও আমির খান। বাজির শর্ত ছিল, যে জিতবে সে যা বলবে, পরাজিত জনকে সেটাই করতে হবে। দুজন দুজনকে দুটি শর্ত বেঁধে দিয়েছিলেন। ক্যাটরিনার বেঁধে দেওয়া শর্তে আমির রাজি হয়েছিলেন, কিন্তু আমিরের শর্তে রাজি হননি ক্যাটরিনা কাইফ। কেননা, বাজি হারলে ভয়াবহ লজ্জায় পড়তে হতো তাঁকে। সেই ঝুঁকিটাই তিনি নিতে চাননি।

ঘটনাটি গত বছরের নভেম্বর মাসের। ‘স্টারি নাইট টু. ওহ!’ নামের এক টক শোতে অংশ নেন আমির খান, ক্যাটরিনা কাইফ এবং আলী আব্বাস জাফর। অনুষ্ঠানে আরেকবার ক্যাটরিনা-সালমানের সম্পর্কের গোমর ফাঁস হয়। সেখানে এক ভিডিও কলে আমির বলেন, ‘ক্যাটরিনাকে বললাম, আসো আমার সঙ্গে দাবা খেল। তুমি যদি জিতে যাও, যা বলবে আমি তাই করব। আর আমি যদি জিতি তাহলে তোমাকে সালমান খানের অ্যাপার্টমেন্টের সামনে দাঁড়িয়ে একটা গান গাইতে হবে।’

আমির বলেন, ‘ক্যাটরিনা আমাকে দাবায় হারাতে আগ্রহী ছিল বটে। বলেছিল, তাহলে আমাকে একটু চর্চা করতে দিন। বাসায় কয়েক মাস চর্চার পর খেলব। কয়েক মাস খেলার পর সে বলল, ঠিক আছে আমি প্রস্তুত।’ শর্ত হলো, আমির যদি হারেন, তাহলে ক্যাটরিনাকে নিয়ে তাঁকে আরেকটি ছবি করতে হবে। আর ক্যাটরিনা যদি হারেন, তাহলে সালমানের অ্যাপার্টমেন্টের সামনে দাঁড়িয়ে তাঁকে গাইতে হবে ‘দিল চজে কেয়া হ্যায়, আপ মেরি জান লেযায়ে।’ গানের কথা শুনে ঘাবড়ে গিয়েছিলেন ক্যাটরিনা। বাজিতে হারার ভয়ে তিনি আর খেলতেই রাজি হননি। আজ প্রায় দুই মাস পর ইন্টারনেটে হঠাৎ সামনে উঠে আসে সেই ঘটনা।

২০০৯ সালে ক্যাটরিনা-সালমানের সম্পর্ক ফাঁস হওয়ার আগে চার বছর তাঁরা প্রেম করেছেন বলে শোনা যায়। যদিও দুজনের কেউই ঘটনা স্বীকার করেননি। এ দুজন তারকার প্রেম নিয়ে মানুষের আগ্রহের সীমা ছিল না। দুজন একত্রে অভিনয় করেছেন ‘টাইগার জিন্দা হ্যায়’ ও ‘এক থা টাইগার’সহ আরও কয়েকটি ছবিতে।

আমির খানের সঙ্গে দ্বিতীয়বারের মতো বড় পর্দায় ‘থাগস অব হিন্দোস্তান’ ছবিতে দেখা যায় ক্যাটরিনাকে। যদিও ছবিটি একদম সাড়া ফেলতে পারেনি। ক্যাটরিনা কাইফকে আবারও পর্দায় দেখা যাবে ‘ভারত’ ছবিতে, যেখানে তাঁর সহশিল্পী সালমান খান। ‘ভারত’ মুক্তি পাবে চলতি বছরের ঈদুল ফিতরে।

মন্তব্য লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here