কলেজে নাচানাচিতে বাধা দেয়ায় শিক্ষকসহ ৪ ছাত্রকে ছুরিকাঘাত

Avatar
দৈনিক২৪ | অনলাইন নিউজ পোর্টাল
১২:৪৪ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০১৯

বগুড়ার একটি বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বহিরাগত দুই দল যুবকের মধ্যে সংঘর্ষে তিনজন ছুরিকাহত হয়েছে। তাদের থামাতে গিয়ে ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এক শিক্ষকও ছুরিকাহত হয়েছেন। বগুড়ার বিয়াম মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজে সোমবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

ছুরিকাহত তিন যুবক বগুড়া সরকারি আজিজুল হক কলেজ ও সরকারি শাহ সুলতান কলেজের ছাত্র। তাদেরকে চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহত শিক্ষককে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিয়াম মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান চলাকালে পার্শ্ববর্তী ঘুনপাড়া মহল্লার বেশ কিছু যুবক ভেতরে ঢুকে পড়ে। প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা যখন সঙ্গীত ও নৃত্য পরিবেশন করছিল তখন বহিরাগত যুবকরা দর্শক সারিতে নাচানাচি শুরু করে। এরই এক পর্যায়ে ছাত্রদের সঙ্গে তাদের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। সংঘর্ষে সরকারি আজিজুল হক কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্র ইশতিয়াক হক মিকাত ও আফাজ হোসেন অভি এবং সরকারি শাহ সুলতান কলেজের ছাত্র রিয়াজ হাসান শিশির ছুরিকাহত হয়। তাদের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে আহত হন বিয়াম মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজের রসায়ন বিভাগের সহকারী শিক্ষক সানাউল হক।

আহতদের বগুড়া শহরের নামাজগড়ের বেসরকারি চিকিৎসা কেন্দ্র স্বদেশ হাসপাতালে নেয়া হলে ওই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ছুরিকাহত তিনজনকে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে স্থানান্তর করেন এবং প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে শিক্ষক সানাউলকে ছেড়ে দেন। আহতদের ছাত্রদের মধ্যে সরকারি শাহ সুলতান কলেজের ছাত্র রিয়াজ হাসান শিশিরের অবস্থা গুরুতর। তার শরীরের একাধিক স্থানে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে।

বিয়াম মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ মোস্তাফিজুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বহিরাগত যুবকরা অনুষ্ঠানে এসে এই ঘটনা ঘটিয়েছে। আর আহত ছাত্ররা অন্য কলেজে এখন পড়লেও তারা বিয়াম স্কুলের সাবেক ছাত্র। মারামারি থামাতে গিয়ে শিক্ষক সানাউল সামান্য আহত হন। তাৎক্ষণিক বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে।

বগুড়া সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম বদিউজ্জামান বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ ওই অনুষ্ঠানের ভিডিও চিত্র ধারণ করেছেন। পুলিশ সেটি সংগ্রহ করেছে। ওই ভিডিও দেখে সংঘর্ষে জড়িতদের শনাক্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মন্তব্য লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here