‘জেলখানায় ভালো ছিলাম, আমাকে বেশ আপ্যায়ন করা হয়েছে’

Avatar
নিজাম উদ্দিন, সিনিয়র রিপোর্টার
৬:৩৩ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০১৯

যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে মারধর এবং নির্যাতনের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় হিরো আলমকে গ্রেফতার করেছিল পুলিশ। আজ সেই মামলার জামিন পেয়েছেন সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আলোচিত ও সমালোচিত এই ব্যাক্তি।

বৃহস্পতিবার (১৮ এপ্রিল) দুপুরে বগুড়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক নরেশ চন্দ্র সরকার তার জামিন মঞ্জুর করেন। স্ত্রী সুমি বেগম সংসার করবেন বলে রাজি হওয়ার ভিত্তিতে তার জামিন মঞ্জুর করেন আদালত। এ সময় আদালতে হিরো আলম ও তার স্ত্রী দুজনেই উপস্থিত ছিলেন।

হিরো আলমের শ্বশুর (বাদী) মামলায় আপস করায় এবং স্ত্রী সুমি বেগম তার সঙ্গে সংসার করতে চাওয়ায় এ আদেশ দেওয়া হয় বলে জানা যায়। জেলখানায় থাকার স্মৃতি ব্যক্ত করতে গিয়ে হিরো আলম গণমাধ্যমকে বলেন, ‘জেলখানায় ভালো ছিলাম, সেখানে আমাকে বেশ আপ্যায়ন করা হয়েছে। জেলখানায় অন্যান্য কয়েদিদের সঙ্গে গল্প গুজব করে সময় কাটিয়েছি। এছাড়া অবসরে সামনের বইমেলার জন্য কিছু লেখালেখিও করেছি।’

জামিনের ব্যাপারে হিরো আলমের আইনজীবী মাসুদার রহমান স্বপন বলেন, ‘হিরো আলমের জামিন শুনানিকালে তার স্ত্রী কোনো আপত্তি জানাননি। বরং আদালতকে বলেছেন, নিজেদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝির কারণে মামলা করেছেন।’ এর আগে স্ত্রীকে মারধরের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় ৬ মার্চ হিরো আলমকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে।

মন্তব্য লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here